মঙ্গলবার, ১৬ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১লা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১০ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি
মঙ্গলবার, ১৬ই জুলাই, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১লা শ্রাবণ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১০ই মহর্‌রম, ১৪৪৬ হিজরি

ভূমি অফিসে তথ্য চাওয়ায় ক্ষিপ্ত হয়ে মোবাইল কেড়ে নেন ও গালিগালাজ করেন আহসান হাবীব

কুড়িগ্রাম জেলা প্রতিনিধিঃ-রাজারহাটে নাজিম খান ইউনিয়ন ভূমি অফিসে কিছু কুড়িগ্রামে স্টাফ রিপোর্টার মোঃ এনামুল হক(বিপ্লব) অভিযান নিউজ টিভির সাংবাদিক তথ্য চাওয়ায় জন্য ভূমি অফিসে থাকা কর্মকর্তা মোঃ আহসান হাবীব এর কাছে গিয়ে কথা না বলতেই তিনি অশালীন ভাষায় গালিগালাজ করে এবং তার মোবাইল কেড়ে নেন।
মোবাইল ফোন কেড়ে নিয়ে নানান প্রকার ক্ষমতার দাপট দেখান এই কর্মকর্তা।
তিনি বলেন তোর কত বালকামা সাংবাদিকের লেখায় আমার বাল ছিঁড়ে তা আমার জানা আছে। আর কত সাংবাদিক গেলো আমার বালের উপর দিয়ে সহ নানান ধরনের অশালীন ভাষায় গালিগালাজ করতে থাকে।

নাজিম খান ইউনিয়নে বেশ কিছু লোক আমাকে জানান,যে ভূমি অফিসে আমাদের কাছ থেকে অতিরিক্ত টাকা নিচ্ছেন। সরকারি ফি যত তার দিগুন টাকা হাতিয়ে নিচ্ছে এই আহসান হাবীব।

টাকা দিলে দলিলের কাজ হবে না দিলে নাই।
আহসান হাবীব এর আগে উলিপুর উপজেলা দলদলিয়া ইউনিয়ন ভূমি অফিসে কর্মরত ছিলেন, সেখান থেকেও সে অনেক লোকজন এর কাছ থেকে টাকা হাতিয়ে নিয়েছেন।
নাম না প্রকাশ করা এক ব্যাক্তি আজ সকালে আমার বাসাতে এসে তার একটা দলিল খারিজ করার জন্য আসেন এই আহসান হাবীব এর কাছে।
খাজনা সহ বেশ কিছু কাজ দলিলের সম্পূর্ণ করে রাজারহাট উপজেলা ভূমি অফিসে শুধু তার সই দিয়ে দলিলটি পাড় করে দিবেন,তার জন্য সে ১০০০/-টাকা দাবি করেন।
এই ব্যাপারে কথা বলতে গেলে আহসান হাবীব ক্ষিপ্ত হয়ে ক্যামেরা কেড়ে নিয়ে গালি গালাজ করেন।

রাজারহাট উপজেলা সহকারী ভূমি কর্মকর্তা (এসিল্যান্ড) মোঃ আরিফুল ইসলাম এবিএম বলেন, সাংবাদিক সব জায়গায় তথ্য সংগ্রহ করবে এটা তাদের নৈতিক দায়িত্ব তার সংঙ্গে এরকম আচরণ করা ঠিক হয়নি।
এবিষয়ে আমরা তদন্ত করে প্রয়োজনীয় ব্যবস্থা গ্রহণ করা হবে।

সম্পর্কিত