বৃহস্পতিবার, ২৩শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৯ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১৫ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি
বৃহস্পতিবার, ২৩শে মে, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৯ই জ্যৈষ্ঠ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১৫ই জিলকদ, ১৪৪৫ হিজরি

বলিউড সঙ্গীতশিল্পী আতিফ আসলাম ঢাকায় আসছেন ১৯ এপ্রিল

বিনোদন ডেস্ক: অবশেষে প্রতীক্ষার প্রহর শেষ হতে চলেছে বাংলাদেশের সঙ্গীতপ্রেমীদের। চলতি বছরের ১৯ এপ্রিল ঢাকায় কনসার্ট মাতাতে আসছেন বলিউডের জনপ্রিয় সংগীতশিল্পী আতিফ আসলাম।

রবিবার (১৪ এপ্রিল) বিকেলে নিজের ভেরিফায়েড ফেসবুক পেজ থেকে দেওয়া এক স্ট্যাটাসে বিষয়টি জানিয়েছেন এই তারকা নিজেই। আতিফ জানান, আগামী ১৯ এপ্রিল রাজধানীর বসুন্ধরার ক্রিকেট গ্রাউন্ডে লেট’স ভাইবের আয়োজনে অনুষ্ঠিত কনসার্টে পারফর্ম করবেন তিনি।

এর আগেই তাঁর ঢাকার মাটিতে পা রাখার কথা রয়েছে। এর আগে গত মার্চের শেষের দিকে ফেসবুকে এক স্ট্যাটাসে শিগগিরই তিনি বাংলাদেশে আসতে যাচ্ছেন।

তবে সে সময় দিনক্ষণ নির্ধারিত করে কিছু বলেননি তিনি। গত রবিবারই কনসার্টের সময় ঘোষণা করলেন এই তারকা। আতিফ আসলাম বাংলাদেশে আসার তারিখ ঘোষণার পর উচ্ছ্বাস প্রকাশ করেছেন তাঁর ভক্তরা।

এর আগে ২০১৩ সালে বিপিএলের উদ্বোধনী অনুষ্ঠানে পারফর্ম করতে ঢাকায় এসেছিলেন আতিফ আসলাম। ফলে দীর্ঘ ১১ বছর পর আবারও ঢাকায় পা রাখতে যাচ্ছেন জনপ্রিয় এই তারকা।

২০০২ সালে প্রথমবারের মতো পাকিস্তানে বন্ধুদের নিয়ে “জাল” নামে একটি ব্যান্ড তৈরি করেছিলেন আতিফ। সেই ব্যান্ডের প্রথম অ্যালবাম ‘জাল পরি’ প্রকাশের পর রাতারাতি জনপ্রিয়তা পান তিনি। অ্যালবামের “ভিগি ইয়াদিন”, “মাহি ভে”, “আখোঁ সে” ও “জাল পরি” গানগুলো পাকিস্তানের গণ্ডি পেরিয়ে ভারতেও সমাদৃত হয়।

পরে ২০০৫ সালে বলিউডের পরিচালক ও প্রযোজক মহেশ ভাটের হাত ধরে বলিউডে প্লে-ব্যাক সঙ্গীতশিল্পী হিসেবে আত্মপ্রকাশ করেন আতিফ আসলাম। “জেহের” সিনেমায় “ও লামহে ও বাতে” গানে কণ্ঠ দিয়ে সাড়া ফেলেছিলেন তিনি। এরপর আর পেছনে ফিরে তাকাতে হয়নি তাঁকে। একের পর এক শ্রোতাপ্রিয় গান উপহার দিয়েছেন আতিফ। ক্যারিয়ারের বেশির ভাগ গানই বলিউডের করেছেন তিনি। তবে ভারত ও পাকিস্তানের মধ্যে রাজনৈতিক সঙ্কটের মধ্যে তাকেসহ একাধিক পাকিস্তানি শিল্পীকে কয়েকবার বলিউড থেকে বহিষ্কারও করা হয়। গানের পাশাপাশি ২০১১ সালে পাকিস্তানি “বোল” সিনেমায় অভিনয়ও করেছেন তিনি। এ ছাড়াও কয়েকটি মিউজিক ভিডিওর দৃশ্যে পাওয়া গেছে তাকে।

সম্পর্কিত