বুধবার, ২৪শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১১ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১৫ই শাওয়াল, ১৪৪৫ হিজরি
বুধবার, ২৪শে এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ১১ই বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ১৫ই শাওয়াল, ১৪৪৫ হিজরি

সব ধরনের জ্বালানি তেলের দাম কমেছে

ডেস্ক নিউজ: জ্বালানি তেলের দাম কমেছে। ফলে ডিজেল, কেরোসিন, অকটেন, পেট্রোলসহ সব ধরনের জ্বালানি তেলের দাম কমল।

বৃহস্পতিবার (৭ মার্চ) বিকালে জ্বালানি ও খনিজসম্পদ বিভাগের এক প্রজ্ঞাপনে এ তথ্য জানানো হয়েছে। নতুন দাম রাত ১২টা থেকে কার্যকর হবে বলে জানিয়েছে।

প্রজ্ঞাপনে বলা হয়, ডিজেল ও কেরোসিনের দাম লিটার প্রতি ১০৯ টাকা থেকে ৭৫ পয়সা কমিয়ে ১০৮.২৫ টাকা করা হয়েছে। এ ছাড়াও অকটেনের দাম লিটার প্রতি ১৩০ টাকা থেকে ৪ টাকা কমিয়ে ১২৬ টাকা এবং পেট্রোলের দাম লিটার প্রতি ১২৫ টাকা থেকে ৩ টাকা কমিয়ে ১২২ টাকা করা হয়েছে।

এর আগে, জ্বালানি তেলের দাম সমন্বয়ের ঘোষণা দিয়েছিলেন বিদ্যুৎ, জ্বালানি ও খনিজসম্পদ মন্ত্রণালয়ের প্রতিমন্ত্রী নসরুল হামিদ বিপু। তিনি বলেন, বিশ্ববাজারের সঙ্গে সমন্বয় করে প্রতি মাসে জ্বালানি তেলের দামে সমন্বয় করা হবে।

গত ২৯ ফেব্রুয়ারি জ্বালানি তেলের স্বয়ংক্রিয় মূল্য নির্ধারণের জন্য নির্দেশিকা প্রকাশ করা হয়। সেখানে বলা হয়, দেশে ব্যক্তিগত যানবাহনে অকটেন ও পেট্রোল বেশি ব্যবহৃত হয়। সেকারণে বিলাস দ্রব্য হিসেবে সবসময় ডিজেলের চেয়ে অকটেন ও পেট্রোলের দাম বেশি রাখা হয়।

প্রসঙ্গত, উড়োজাহাজে ব্যবহৃত জেট ফুয়েল ও বিদ্যুৎকেন্দ্রে ব্যবহৃত ফার্নেস অয়েলের দাম নিয়মিত সমন্বয় করে বাংলাদেশ পেট্রোলিয়াম করপোরেশন (বিপিসি)। আর কেরোসিন, ডিজেল, অকটেন ও পেট্রোলের দাম নির্ধারণ করে জ্বালানি ও খনিজসম্পদ বিভাগ। ২০২২ সালে আগস্টে ভর্তুকির চাপ এড়াতে গড়ে ৪২ শতাংশ জ্বালানি তেলের দাম বাড়েনো হয়। এরপর ব্যাপক সমালোচনার মুখে ওই মাসের শেষ দিকে লিটার প্রতি ৫ টাকা করে দাম কমানো হয়।

সম্পর্কিত