নভেম্বর ৩০, ২০২২ ৪:৪৩ বিকাল



রাজীবপুরে আগ্রহী মানুষ না থাকায় নমুনা সংগ্রহ হয় নি

 

রাজীবপুর(কুড়িগ্রাম)প্রতিনিধি

স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের রোগতত্ত্ব, রোগনিয়ন্ত্রণ ও গবেষণা ইনস্টিটিউটের (আইইডিসিআর) অনলাইন ব্রিফিংয়ে গত বৃহস্পতিবার(২এপ্রিল) স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের পরিচালক হাবিবুর রহমান জানিয়েছিলেন , দেশের প্রতিটি উপজেলা থেকে কমপক্ষে দুজনের নমুনা পরীক্ষা করার নির্দেশ দিয়েছেন প্রধানমন্ত্রী।

নির্দেশনা অনুসারে স্বাস্থ্য অধিদপ্তরের মহাপরিচালক অধ্যাপক আবুল কালাম আজাদ বিভিন্ন বিভাগীয় পরিচালকের মাধ্যমে দেশের প্রতিটি জেলা এবং উপজেলা থেকে নমুনা সংগ্রহ করে করোনাভাইরাস পরীক্ষা করার নির্দেশনা দিয়েছেন।

প্রান্তিক জনগোষ্ঠীর মাঝে করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ হয়েছে কিনা তা নির্ণয় করতেই এই উদ্যোগ নেওয়া হয়েছে বলে স্বাস্থ্য বিভাগ সূত্রে জানা গেছে।

তবে সেই নির্দেশের তিন দিন পেরিয়ে গেলেও কুড়িগ্রামের রাজীবপুর উপজেলায় আজ রবিবার পর্যন্ত কোন ব্যাক্তির নমুনা সংগ্রহ করা হয় নি।উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্স সূত্রে জানা গেছে আগ্রহী কোন মানুষ না পাওয়ায় নমুনা সংগ্রহ করতে বিলম্ব হচ্ছে।

রাজীবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা.দেলোয়ার হোসেনে’র কাছে এ বিষয়ে জানতে চাইলে তিনি বলেন,করোনার প্রাথমিক উপসর্গ নিয়ে এখন পর্যন্ত কেউ স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সে আসে নি প্রচারণা চালানো হলেও কেউ নমুনা দিতে আগ্রহী না হওয়ায় সংগ্রহ করা যায় নি নমুনা।

দুই জন মানুষের নমুনা সংগ্রহ করে পরীক্ষা করার বিষয়ে মুঠোফোনে কথা হয় রৌমারী উপজেলা স্বাস্থ্য ও পরিবার পরিকল্পনা কর্মকর্তা ডা.মোঃমোমেনুল ইসলামের সাথে, তিনি জানান নমুনা সংগ্রহ করা হয়েছে আগামীকাল সোমবার সেগুলো ঢাকা পাঠানো হবে।

রাজীবপুর ও রৌমারী উপজেলা শহরের এই হাসপাতাল দুটিতে করোনার প্রার্দুভাবে রোগী কমে গিয়েছে। খুব জরুরি প্রয়োজন ছাড়া কেউ হাসপাতালে আসছেন না চিকিৎসা নিতে।রাজীবপুর উপজেলা স্বাস্থ্য কমপ্লেক্সর রোগীদের বেশিরভাগ বেড খালি পরে আছে। চিকিৎসক দের নিরাপত্তার জন্য পারসোনাল প্রটোকশন ইকুইপমেন্ট (পিপিই) দেওয়া হয়েছে সরকারীভাবে।হাসপাতালের সামনে করোনার প্রতিরোধের বিষয়ে নানা রকম সতর্কতা মূলক ব্যানার পোস্টার সাঁটানো রয়েছে। জরুরী প্রয়োজনে দেওয়া হয়েছে হটলাইন নম্বর।



Comments are closed.

      আরও নিউজ