সোমবার, ২৬শে ফেব্রুয়ারি, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ

ADVERTISEMENT

রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দিতে লক্ষ্যমাত্রা ছাড়িয়েছে সরিষা চাষ

মোঃ আমিরুল হক, রাজবাড়ী ঃমৌসুম ভালো থাকায় সরিষা চাষে যথেষ্ট পরিমাণে মনোযোগী হয়ে উঠেছেন রাজবাড়ীর বালিয়াকান্দি উপজেলার প্রান্তিক কৃষকরা। এ উপজেলায় এবার সরিষার বাম্পার ফলন হয়েছে।

সরেজমিনে ঘুরে জেলার বালিয়াকান্দি উপজেলার বিভিন্ন এলাকায় দেখা যায়, বিস্তীর্ণ এলাকার ফসলের মাঠে এখন শুধুই হলুদের ঢেউ। সরিষার চাহিদা অতিরিক্ত ফলনে গ্রাম এলাকার প্রান্তিক কৃষকের চোখে মুখে আনন্দের আভা ফুটে উঠেছে। বর্তমানে কৃষকরা মাঠপরিচর্যায় ব্যস্ত সময় পার করছেন।

বালিয়াকান্দি উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণ অধিদপ্তর সূত্রে জানা গেছে, চলতি বছর বালিয়াকান্দিতে ১ হাজার ৩২ হেক্টর জমিতে সরিষার চাষ হয়েছে। লক্ষ্যমাত্রা ছিল ৭ হাজার হেক্টর জমি গত বছর ৪ হাজার ৪৫ হেক্টর জমিতে সরিষার চাষ হয়েছিল।

বালিয়াকান্দি উপজেলার পর্ব মৌকুড়ি গ্রামের সরিষা চাষি রাজ্জাক মোল্লা বলেন, প্রতি বছর বাড়ির জন্য ১৫ শতক সরিষা চাষ করতাম কিন্তু দেশে ভোজ্যতেলের দাম বেড়েই চলছে। তাই তেলের চাহিদা মেটাতে আমি সরিষার চাষ করছি। এবার দুই বিঘা জমিতে সরিষা আবাদ করেছি।

উপজেলার অপর কৃষক আজিজ মোল্লা বলেন, ‘প্রতি বছর গম চাষ করতাম, এ বছর আমি সরিষা চাষ করছি। এ বছর ১ বিঘা জমিতে সরিষার চাষ করেছি।

উপজেলার ইসলামপুর ইউনিয়নের বাড়াাী, নারায়নপুর, খালকুলা, সারুটিয়া, ভাতশালা, রাজধরপুর, বা উনারা, দেয়ারা, মঠবাড়িয়া, রামদিয়া, বহরপুর ইউনিয়নের ডহর পাচুরিয়া, পাকালিয়া, বংকুর, নতুন চর, চরবহরপুর, বাঘুটিয়া গ্রামের বেশ কয়েকজন কৃষকের সঙ্গে কথা বললে তারা বলেন, আমরা আমাদের জমিগুলোতে প্রতিবছরই গম সহ অন্যান্য ফসলের আবাদ করে আসছিলাম। উপজেলা কৃষি সম্প্রসারণের সরিষা চাষে উৎসাহিতকরণ প্রকল্পের আওতায় তাদের কাছ থেকে পরামর্শ সহ বীজ পেয়েছি। সেটা দিয়েই আমরা আমাদের জমিতে সরিষা আবাদে উদ্বুদ্ধ হই। সরিষার চেহারা দেখে আমরা আনন্দিত হচ্ছি। ঠিকমতো ঘরে তুলতে পারলে অবশ্যই লাভবান হব। তারা আরো বলেন, এ মৌসুমী সরিষার আবাদ করতে উপজেলা কৃষি অফিস থেকে আমাদেরকে যথেষ্ট পরিমাণ পরামর্শ প্রদান করা হয়েছে। তাদের পরামর্শক্রমে আমরা সরিষা পাশে আগ্রহী হয়েছি। আগামীতে কৃষি অফিসের পরামর্শ নিয়েই অন্যান্য ফসল তলাতে চেষ্টা করব।

বালিয়াকান্দি উপজেলা কৃষি কর্মকর্তা কৃষিবিদ মোঃ রফিকুল ইসলাম বলেন, ‘চলতি আমন মৌসুমে উপজেলায় ১ হাজার ৩২ হেক্টর জমিতে সরিষার চাষ করেছে গ্রামাঞ্চলের প্রান্তিক কৃষকেরা। যার লক্ষ্যমাত্রা ছিল ৭ শত হেক্টর। গত বছর এই উপজেলায় সরিষার চাষ হয়েছিল ৪৪৫ হেক্টর। এ বছর আমরা উপজেলায় মোট ২ হাজার ৭০০ জন কৃষককে বিনামূল্যে সরিষার বীজ ও সার প্রদান করেছি।

সম্পর্কিত