বুধবার, ১৭ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ৮ই শাওয়াল, ১৪৪৫ হিজরি
বুধবার, ১৭ই এপ্রিল, ২০২৪ খ্রিস্টাব্দ, ৪ঠা বৈশাখ, ১৪৩১ বঙ্গাব্দ, ৮ই শাওয়াল, ১৪৪৫ হিজরি

উলিপুরে টাকার অভাবে নবজাতক বিক্রি, উদ্ধার করল পুলিশ

নিজস্ব প্রতিনিধি: কুড়িগ্রামের উলিপুরে টাকার অভাবে নবজাতক শিশুকে বিক্রির ঘটনায় ২ ঘন্টার মধ্যে উদ্ধার করে পিতা-মাতার কাছে ফিরিয়ে দিয়েছে পুলিশ। ঘটনাটি ঘটেছে উপজেলার দলদলিয়া ইউনিয়নে।

জানা গেছে, শিশুটির মা শিরিনা আক্তার দলদলিয়া ইউনিয়নে বাবার বাড়ীতে থাকাকালীন উলিপুরের একটি বেসরকারি ক্লিনিকে সিজারের মাধ্যমে গত ২৩ মার্চ একটি পুত্র সন্তানের জন্ম দেন। সাংসারিক অভাব অনটন আর স্বামী খোজ না নেওয়ায় এবং সিজারের টাকা পরিশোধের জন্য একমাত্র নবজাতক সন্তানকে গত ২৬ মার্চ রাজারহাট উপজেলার নাজিমখান ইউনিয়নের রামশিং মুন্সিপাড়া গ্রামের পারভীন বেগম দম্পত্তির কাছে ১ লক্ষ টাকায় বিক্রি করে দেয়। নবজাতক সন্তানকে বিক্রির তিন দিনের মাথায় মঙ্গলবার(২ এপ্রিল) দুপুর ১২টায় নবজাতকের পিতা মোঃ হাবিবুর রহমান নবজাতক সন্তানকে ফিরিয়ে পাওয়ার অনুরোধ জানিয়ে উলিপুর থানায় অভিযোগ করেন। পরে এসআই রবিউল ইসলাম ২ ঘন্টার মধ্যে রাজারহাট উপজেলার রামশিং মুন্সিপাড়া গ্রামের পারভীন বেগমের নিজ বাড়ি থেকে নবজাতককে উদ্ধার করে থানায় নিয়ে আসেন। পরে নারী, শিশু,বয়স্ক ও প্রতিবন্ধি হেল্প ডেস্কের মাধ্যমে উদ্ধারকৃত নবজাতককে তার পিতা-মাতার জিম্মায় প্রদান করা হয়।

বুধবার(৩ এপ্রিল) বিকেলে উলিপুর থানার অফিসার ইনচার্জ(ওসি) গোলাম মর্তুজা বলেন, নবজাতক শিশুটিকে উদ্ধার করে তার পিতা মাতার জিম্মায় প্রদান করা হয়েছে।

জাহিদ হাসান /উলিপুর

সম্পর্কিত